Wednesday, January 14, 2015

স্ত্রীর উচ্চশিক্ষাই বিচ্ছেদের কারণ?

একটা সময় এমন ধারণার প্রচলন ছিল যে স্ত্রীকে শিক্ষা ও পদমর্যাদায় স্বামীর চেয়ে পিছিয়ে থাকতে হবে। তা না হলে যে সংসার টিকিয়ে রাখা কঠিন!

এখনো যে অনেকে ও রকম মনোভাব পোষণ করেন না, তা নয়। উচ্চশিক্ষিত নারীদের অনেকেও নিজের চেয়ে কম শিক্ষিত ব্যক্তিকে স্বামী হিসেবে মেনে নিতে দ্বিধা বোধ করেন। কিন্তু এ রকম ধারণা থেকে বেরিয়ে আসার পরামর্শ দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিন-ম্যাডিসন বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক। তাঁদের মতে, প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষায় স্বামীর চেয়ে এগিয়ে থাকা নারীরা একটা পর্যায়ে বিবাহবিচ্ছেদের প্রতি ঝুঁকে পড়েন বলে প্রচলিত নেতিবাচক ধারণাটি সেকেলে হয়ে পড়েছে। এখন তুলনামূলক বেশি শিক্ষিত নারীর সঙ্গেও পুরুষের সুন্দর সম্পর্ক হতে পারে। আর তাই বিবাহবিচ্ছেদের ঝুঁকি হিসেবে স্ত্রীর উচ্চশিক্ষাকে দায়ী করার সুযোগ নেই।

আমেরিকান সোশিওলজিক্যাল রিভিউ সাময়িকীতে প্রকাশিত এক গবেষণা প্রতিবেদনে বলা হয়, যেসব স্ত্রী তাঁদের স্বামীর চেয়ে কম শিক্ষিত, তাঁদের তুলনায় স্বামীর চেয়ে বেশি শিক্ষিত স্ত্রীদের বিবাহবিচ্ছেদ হওয়ার ঝুঁকি কম থাকে। এমনকি গবেষকেরা এ-ও খুঁজে পেয়েছেন যে সমান শিক্ষাগত যোগ্যতার স্বামী-স্ত্রী বিবাহবিচ্ছেদের প্রতি কম আগ্রহী থাকেন।

উইসকনসিন-ম্যাডিসন বিশ্ব-বিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষক ক্রিস্টিন আর স্কোয়ার্টজ বলেন, স্বামী শুধু উপার্জন করবে আর স্ত্রী ঘর সামলাবে বলে আগে প্রচলিত বিয়ের ধারণা থেকে সরে এসে এখনকার সমাজব্যবস্থা নারী-পুরুষের সমতাভিত্তিক দাম্পত্যের পথে অনেক দূর এগিয়েছে। 

সূত্র- internet

0 comments:

Post a Comment

Popular Posts